জোড়াতালির ভাঙ্গা টাইলস দিয়ে নির্মিত মডেল মসজিদ উদ্বোধন!

2 days ago
6:17 pm
23
দেশজুড়ে ঢাকা জোড়াতালির ভাঙ্গা টাইলস দিয়ে নির্মিত মডেল মসজিদ উদ্বোধন!

“সারাদেশের ৫০ উপজেলায় ৫০টি মডেল মসজিদ ও ইসলামী সাংস্কৃতিক কেন্দ্র উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বৃহস্পতিবার (১০ জুন) সকাল সাড়ে ১০টায় গণভবন থেকে অনলাইনে যুক্ত হয়ে তিনি একযুগে দৃষ্টিনন্দন ও আধুনিক স্থাপত্যশৈলীর মসজিদ্গুলোর উদ্বোধন করেন।

এই ধাপে উদ্বোধন করা ৫০ মসজিদের মধ্যে একটির অবস্থান কিশোরগঞ্জের পাকুন্দিয়া উপজেলা সদরে। সরকারের এমন উদ্যোগে স্থানীয় মুসলিমরা বেশ উৎসাহ বোধ করলেও উদ্বোধনের পর তারা আশাহত হয়েছেন।

সরেজমিনে দেখা যায়, ঢাকা-কিশোরগঞ্জ মহাসড়কের পাকুন্দিয়া পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের সামনে স্থাপিত এই মসজিদটি নির্মাণে বেশ অনিয়মের ঘটনা ঘটেছে। মসজিদের সামনের সিঁড়ি ও দ্বিতীয় তলায় অনেক জায়গায় ভাঙ্গা মার্বেল টাইলস দিয়ে জোড়াতালির মোজাইক সম্পন্ন করে উদ্বোধনের জন্য প্রস্তুত করা হয়েছে।

ভাঙ্গা টাইলসগুলোতে পানির ছোঁয়া পেয়ে হয়ে মরিচা পড়ে বিবর্ণ হয়ে গেছে। এমনকি জানালার ধাতব গ্রীলেও দেখা গেছে মরচিরা দখলদারিত্ব। যার ফলে দৃষ্টিনন্দন মসজিদটি তার প্রত্যাশিত সৌন্দর্য থেকে বঞ্চিত হয়েছে।

তবে মসজিদটির নির্মাণ প্রকল্প বাস্তবায়নের দায়িত্ব পাওয়া প্রতিষ্ঠান এসএস-এমটি অ্যান্ড কে.পি. এল কন্সট্রাকশনের ব্যাবপস্থাপনা পরিচালক ইখতেয়ার মাহমুদ দিচ্ছেন ভিন্ন যুক্তি।

তিনি বলেন, এগুলো মার্বেল পাথর। নির্মাণকাজ শেষ হয়নি এখনও। কাজ শেষে এই পাথরগুলো এখানে থাকবে না। মসজিদের নির্মাণ কাজ সম্পন্ন করে বুঝিয়ে দেওয়ার সময় সব কাজই শতভাগ ঠিক থাকবে।

এ ব্যাপারে পাকুন্দিয়া উপজেলার দায়িত্বে থাকা নির্বাহী কর্মকর্তা এ কে এম লুৎফুর রহমান জানান, আমি ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের সাথে কথা বলেছি। তারা জানিয়েছে এই মার্বেল পাথরগুলো প্রাকৃতিকভাবে সংগৃহীত। কাজের ফিনিশিং হলে এগুলো থাকবে না।

এগুলোর প্রতি ফ্লোরের আয়তন ১ হাজার ৬৮০ দশমিক ১৪ বর্গমিটার। একেকটি মসজিদ নির্মাণ করতে ব্যয় হচ্ছে ১৩ কোটি ৪১ লাখ ৮০ হাজার টাকা। এ দুটি মডেল মসজিদগুলোর প্রতিটিতে একসঙ্গে ৯ শ মুসল্লির নামাজ আদায়ের ব্যবস্থা রয়েছে।

উল্লেখ্য, পাকুন্দিয়ার ১ হাজার ৬৮০ দশমিক ১৪ বর্গমিটারের মসজিদটি নির্মাণে ব্যয় হচ্ছে ১৩ কোটি ৪১ লাখ ৮০ হাজার টাকা। একসাথে মসজিদটিতে নামাজ পড়তে পারবে ৯ শতাধিক মুসুল্লি।”…