রেড রাইস এর খাদ্যগুণ

2 weeks ago
9:30 pm
11
অন্যান্য স্বাস্থ্য রেড রাইস এর খাদ্যগুণ

বাঙালির এক বেলা ভাত না খেলে যেন চলেই না! সাধারণত আমরা হোয়াইট বা সাদা রাইস খেতে অভ্যস্ত, আবার স্বাস্থ্য সচেতন মানুষ খান ব্রাউন রাইস, কিন্তু রেড রাইস-র কথা শুনেছেন কি! রেড রাইস স্বাস্থ্যের পক্ষে খুবই উপকারি। একাধিক স্বাস্থ্য সমস্যার সমাধান আছে রেড রাইসে।

সব মিলিয়ে প্রায় ৪০ হাজার রকমের চাল রয়েছে। প্রত্যেকটির আলাদা আলাদা খাদ্যগুণ রয়েছ। এর মধ্যে একটি হল রেড রাইস। এবার জেনে নিন এর বিভিন্ন স্বাস্থ্য উপকারিতা।

ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণ করে: ইনসুলিন লেভেলকে নিয়ন্ত্রণে রাখতে সাহায্য করে রেড রাইস। এর লো গ্লাইসেমিক সূচক সুগার লেভেল নিয়ন্ত্রণ করতে সহায়তা করে, তাই ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য এই চাল খুবই উপকারি।

অ্যাজমা প্রতিরোধে করে: পালমোনারি ফাংশনকে নিয়ন্ত্রণ করে রেড রাইস। এই চালে রয়েছে ম্যাগনেশিয়াম যা দেহের অক্সিজেনের সার্কুলেশন ঠিক রাখে। এতে অ্যাজমা প্রতিরোধে সাহায্য করে।

অক্সিজেন নিয়ন্ত্রণে: রেড রাইসে আছে আয়রন, এটি খেলে অক্সিজেন শোষণে সাহায্য করে এবং দেহের সমস্ত সেল এবং টিস্যুতে অক্সিজেন পৌঁছে দেয়।

হজমে সাহায্য করে: রেড রাইস ফাইবারের দুর্দান্ত উৎস। এটি দেহ থেকে টক্সিন বের করে অন্ত্র ঠিক রাখতে সাহায্য করে।

হার্টের সমস্যাকে দূরে রাখে: রেড রাইসে থাকা উপাদান দেহে খারাপ কোলেস্টেরলের লেভেল কমাতে সাহায্য করে। কোলেস্টেরলের মাত্রা ঠিক থাকলে হার্টও ভালো থাকে।

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে: আয়রনের অভাবে শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কমে যায়। ক্লান্ত হয়ে পড়বেন, কাজে মন বসবে না। রেড রাইসে আছে আয়রন, যা আপনার শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াবে।

ভিটামিন বি-৬: আমাদের দেহ ভিটামিন বি-৬ তৈরি করতে পারে না। তাই এমন খাবার খেতে হবে যেগুলো থেকে এই ভিটামিন মিলবে। লোহিত রক্তকণিকা তৈরিতে ভিটামিন বি-৬ লাগে। এর অভাবে একাধিক অসুস্থতা বাসা বাঁধবে শরীরে।

স্থুলতার ঝুঁকি কমায়: অতিরিক্ত তৈলাক্ত খাবার, ফ্যাটজাতীয় খাবার খেলে স্থূলতা বাড়ে। রেড রাইস ফ্যাট ফ্রি হওয়ায় এটা খেলে আপনি মোটা হবেন না বা মেদ বৃদ্ধি হবে না।

হাড় মজবুত করে: রেড রাইসে থাকে ম্যাগনেশিয়াম যা হাড়ের স্বাস্থ্যের জন্য খুবই উপকারি। তাই এই রাইস খেলে হাড় ক্ষয়ে যাবে না। জয়েন্টের সমস্যাও দূর করবে রেড রাইস।

ক্লান্তি দূর করে: যারা ওজন নিয়ন্ত্রণে রাখতে চান তাদের জন্য রেড রাইসের কোনও বিকল্প নেই। এতে থাকা উপাদান শরীরের ক্লান্তি দূর করে, আপনি থাকবেন চনমনে।

ওজন কমায়: রেড রাইসে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে ফাইবার, যা পাচনতন্ত্রের জন্য উপকারি এবং কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যাও দূর করে। এটি মেদ বৃদ্ধি করে না। তাই ওজন কমানোর ক্ষেত্রে রেড রাইস খেতেই পারেন।

স্বাস্থ্যোজ্জ্বল ত্বক: রেড রাইসে থাকা আয়রন ও ভিটামিন রেড ব্লাড সেল বা লোহিত রক্তকণিকা তৈরিতে সাহায্য করে। রেড রাইসে থাকা উপাদানগুলি ত্বকের জন্য খুব উপকারি। এর অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট আপনার ত্বকের বয়স বাড়তে দেবে না।