প্রশাসনের নাকের ডগায় মুক্তমুঞ্চে বিদ্যুৎ চুরি

4 weeks ago
2:16 pm
174
অন্যান্য বিশেষ প্রতিবেদন প্রশাসনের নাকের ডগায় মুক্তমুঞ্চে বিদ্যুৎ চুরি

কিশোরগঞ্জের সার্বিক উন্নয়নে এবং জেলা শহরের সৌন্দর্য বর্ধণে জনপ্রশাসন মন্ত্রী ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক প্রয়াত সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের অবদান অনস্বীকার্য। নরসুন্দা লেকসিটি তার স্বপ্নের একটি বাস্তবিক রুপ। নির্মল হাওয়ায় খানিকটা সুন্দর সময় অতিবাহিত করার একটি উল্লেখ্যযোগ্য স্থান নরসুন্দা লেকসিটির গুরুদয়াল মুক্তমঞ্চ।

মুক্তমঞ্চের আশপাশের এলাকাজুড়ে সকাল থেকে রাত অবধি হাজারো লোক ভিড় করে। গড়ে উঠেছে রেস্তোরাসহ শ’খানেক দোকান। প্রতিটি দোকানেই আছে অবৈধ বিদ্যুতের সংযোগ। চলছে দেদারছে ব্যবসা। কিছু কিছু দোকানে ফ্রিজ, ওভেন, ফ্যানও আছে। সবার চোখের সামনেই ঘটছে এসব। প্রতিটি দোকানে হচ্ছে বিদ্যুৎ চুরি। দেখেও দেখে না কেউ।

জানা যায়, ক্ষমতাসীন দলের কিছু নেতাকর্মী ও কিশোরগঞ্জ বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ডের কিছু অসাধু কর্মকর্তা-কর্মচারীদের প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষ মদদে হয় চুরির এ মহাযজ্ঞ। সাথে আছে কিশোরগঞ্জ পৌরসভার কিছু অসাধু কর্মচারী।

কিশোরগঞ্জ পৌরসভার মেয়র মোঃ পারভেজ মিয়া জানান, আমি এ বিষয়ে অবগত নই। কে বা কাহারা বিদ্যুৎ চুরি করছে তা আমার জানা নেই।

কিশোরগঞ্জ বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী মোঃ তারেক ছেফাতী বলেন, অবৈধ মিটার ও বিদ্যুৎ সংযোগ থাকলে শীঘ্রই যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।